ঝিনাইদহে প্রেমিকের বাড়িতে অবস্থানের পর অবশেষে সেই প্রেমিকা স্ত্রীর মর্যাদা পেল

37

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার কানাইডাঙ্গা গ্রামে প্রেমিকের বাড়িতে দুই দিন ধরে অবস্থান করার পর স্ত্রীর মর্যাদা পেলেন তমা খাতুন (১৮) নামে এক যুবতী। বিয়ের দাবিতে দুই দিন ধরে প্রেমিক জহুরুল ইসলামের বাড়িতে অবস্থান করছিলো তমা খাতুন। অবশেষে মঙ্গলবার মধ্য রাতে এক লাখ টাকার কাবিনে তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়। বর্তমান তমা তার শ্বশুর শরিফুল ইসলামের বাড়িতে অবস্থান করছেন।

খবরের সত্যতা স্বীকার করে স্থানীয় ফতেপুর ইউনিয়নের মেম্বর জহুরুল ইসলাম জানান, প্রেমিক জহুরুল ও তার পরিবারের লোকজন রাজি হওয়ায় মঙ্গলবার মধ্যরাতে বিয়ের কাজ শেষ হয়। তমা শ্বশুর বাড়িতে নতুন সংসার শুরু করছে।

উল্লেখ্য, চুয়াডাঙ্গার জীবননগর উপজেলার হাসাদহ গ্রামের নওশের আলীর কন্যা তমার সাথে মহেশপুরের কানাইডাঙ্গা গ্রামের জহুরুলের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে বেশ আগে। সে কারণে প্রেমিকা তমা বেশ কয়েকবার জহুরুলকে বিয়ে করার প্রস্তাব দেয়। কিন্তু জহুরুল নানা অজুহাতে বিয়ের বিষয়টি এড়িয়ে যেতে থাকলে তমা খাতুন গত সোমবার থেকে প্রেমিকের বাড়িতে অবস্থান নেয়। অবস্থা বেগতিক দেখে গা ঢাকা দেয় প্রেমিক জহুরুল।

এ নিয়ে মঙ্গলবার বিভিন্ন পত্র পত্রিকা, নিউজ পোর্টাল সহ ফেসবুকে খবর প্রকাশিত হলে তোলপাড় শুরু হয়। অবশেষে স্থানীয় ইউপি মেম্বরের মধ্যস্থতায় মঙ্গলবার মধ্যরাতে তমাকে স্ত্রী হিসেবে মর্যাদা দেয় জহুরুল।