যে তিন কারণে কখনও রাতে তরমুজ খাবেন না!

51

দিনের বেলা ঘরে ফিরেই তরমুজের ঠান্ডা কুচি। উফ্‌, শরীরটা যেন জুড়িয়ে গেল!‌ স্বাদ বদলের জন্য তরমুজের রস, স্যালাড বা ককটেল, মকটেল— সবই চলতে পারে। এর উপকারিতাও কম নয়। গরমে হিট স্ট্রোক থেকে বাঁচায় তরমুজ।
এতে রয়েছে পটাশিয়াম, ভিটামিন সি, বেটা–ক্যারোটিন, লাইকোপেন, ৯৪ শতাংশ জল। তাই কিডনি আর হার্টের পক্ষেও ভাল। শুধু তাই নয়, রক্তচাপও নিয়ন্ত্রণে রাখে। তবে ভুলেও তরমুজ রাতে খাবেন না। কিছু সমস্যা হতে পারে।

  •  তরমুজ হজম করা একটু হলেও কঠিন। রাতে বিপাকের হার কম থাকে। তাই তরমুজের মতো মিষ্টি জিনিস খেলে হজম হতে চায় না। সেক্ষেত্রে পরের দিন পেট খারাপ হতে পারে।
  •  তরমুজে প্রচুর পরিমাণে প্রাকৃতিক শর্করা রয়েছে। রাতে হজম কম হয় বলে ওজন বাড়তে পারে।
  •  এতে জলের পরিমাণ প্রচুর বেশি। তাই রাতে বহুবার প্রস্রাব করতে হতে পারে। সেক্ষেত্রে ঘুমের ব্যাঘাত ঘটে। ‌