এখনো বিশ্বকাপ শেষ হয়ে যায়নি: পাকিস্তান অধিনায়ক বাবর

বিডিসংবাদ অনলাইন ডেস্কঃ

এখনো সব কিছু শেষ হয়ে যায়নি, বিশ্বকাপে পাকিস্তানের সেমিফাইনালে খেলার আশা এখনো এখনো আছে মনে করছেন দলটির অধিনায়ক বাবর আজম। তবে এজন্য বাকি সময়টা সঠিকভাবে পার করতে হবে।
বাংলাদেশের বিপক্ষে গতকাল কলকাতায় ৭ উইকেটের জয়ের পর বাবর বলেন, ‘অবশ্যই আমরা পরের দুই ম্যাচে জয়ের চেষ্টা করবো। দেখা যাক এরপর আমাদের অবস্থান কি দাঁড়ায়। সামনের ম্যাচগুলোতে আমরা যতটা সম্ভব আত্মবিশ^াসী হয়েই মাঠে নামতে চাই।’
সাত ম্যাচে তিন জয়ে পাকিস্তান ১০ দলের গ্রুপ টেবিলে ৬ পয়েন্ট নিয়ে পঞ্চম স্থানে রয়েছে। ৮ পয়েন্ট নিয়ে অস্ট্রেলিা রয়েছে চতুর্থ স্থানে।
আগামী শনিবার বেঙ্গালুরুতে পাকিস্তান নিউজিল্যান্ডের মোকাবেলা করবে। এরপর ১১ নভেম্বর কলকাতায় বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে গ্রুপ পর্ব শেষ করবে। শেষ দুটি ম্যাচে জয়ের পাশাপাশি টুর্নামেন্টে টিকে থাকতে হলে ১৯৯২ চ্যাম্পিয়নদের অন্য দলগুলোর ফলাফলের ওপরও নির্ভর করতে হবে।
বাংলাদেশের বিপক্ষে শাহিন শাহ আফ্রিদির ৩ উইকেট শিকারের পর ওপেনার ফখর জামান (৮১) ও আব্দুল্লাহ শফিক (৬৮) মিলে ১২৮ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়ে তুলেন। এ জুটির ব্যাটিং দৃঢ়তায় ১০৫ বল হাতে রেখে ৩ উইকেটের বিনিময়ে পাকিস্তান সহজেই ২০৫ রানের জয়ের লক্ষ্যে পৌঁছে যায়।
ফখর সম্পর্কে বাবর আজম বলেছেন, ‘আমরা জানি যখন ফখর নিজের স্বাভাবিক খেলা খেলে তখন ২০-৩০ ওভার একটি ভিন্ন মাত্রা তৈরী হয়। সে কারনেই আমরাও তাকে স্বাভাবিক খেলা খেলতে উদ্বুদ্ধ করি। তার খেলা দেখা সবসময়ই আনন্দের। আজ আমরা ইনিংসে শুরুটা ভাল করেছি। শাহিন দ্রুত উইকেট তুলে নিয়েছে। মূল কথা হচ্ছে মিডল ওভারে আমরা বাংলাদেশকে রান করতে দেইনি ও নিয়মিত বিরতিতে উইকেট তুলে নিয়েছি।’
হাঁটুর ইনজুরির কারনে সাইডলাইনে থাকা ৩৩ বছর বয়সী ফখর জামান আসরে গতকাল দ্বিতীয় ম্যাচ খেলতে মাঠে নেমেছিলেন। তিনি বলেন ‘এই জয়টির জন্য আমরা মুখিয়ে ছিলাম। বিশ^কাপের প্রতিটি জয় আত্মবিশ^াস বাড়ায়। বাকি দুটি ম্যাচেও আমরা জয়ী হতে চাই, আমাদের লক্ষ্য সেমিফাইনালে খেলা।’
সাত ম্যাচে ষষ্ঠ পরাজয়ে প্রথম দল হিসেবে বিশ^কাপ থেকে ছিটকে গেছে বাংলাদেশ। কাল পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ শেষে অধিনায়ক সাকিব আল হাসান বলেছেন, ‘এই মুহূর্তে তিনটি বিভাগেই আমাদের দলগতভাবে পারফর্ম করতে হবে। এখানে ব্যক্তিগত কোন সাফল্যে আমাদের পক্ষে ম্যাচ জয় করা সম্ভব নয়।’
রাউন্ড রবিন লিগে এখনো বাংলাদেশের দুটি ম্যাচ বাকি আছে। ৬ নভেম্বর নয়া দিল্লিতে শ্রীলংকা ও পাঁচদিন পর পুনেতে অস্ট্রেলিয়ার মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। ঐ ম্যাচগুলোতে নিজেদের ফিরিয়ে আনার আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন সাকিব। এ সময় তিনি কলকাতার সমর্থকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

বিডিসংবাদ/এএইচএস