পদত্যাগ করলেন দ. কোরিয়ার কোচ

বিডিসংবাদ অনলাইন ডেস্কঃ

ব্রাজিলের বিরুদ্ধে ৪-১ গোলের পরাজয়ের মধ্য দিয়ে কাতার বিশ্বকাপের শেষ ষোল থেকে বিদায় নিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়া। গতকাল এই ম্যাচের পরপরই কোরিয়ান কোচ পাওলো বেনটো পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন।

৫৩ বছর বয়সী পর্তুগীজ এই কোচ বলেন, ‘এখন আমাকে ভবিষ্যত নিয়ে ভাবতে হবে। কিন্তু এটা নিশ্চিত দক্ষিণ কোরিয়া দলের সাথে আমি আর থাকছি না। এখন আমার কিছুদিনের বিশ্রাম প্রয়োজন, এরপর ভেবে দেখবো কী করা যায়। আমি আমার সিদ্ধান্তের কথা খেলোয়াড় ও ফেডারেশনের সভাপতিকে জানিয়ে দিয়েছি। সেপ্টেম্বরেই আমি এই সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করেছিলাম। এ ব্যপারে আমি অনড় ছিলাম এবং আজ সেটা প্রকাশ করলাম। এই যাত্রায় আমাকে যারা সহযোগিতা করেছে সকলকে ধন্যবাদ জানাতে চাই। এমন একটি দলের কোচ হিসেবে কাজ করতে পেরে আমি সত্যিই গর্বিত।’

২০১৮ বিশ্বকাপের পর দক্ষিণ কোরিয়ার কোচের দায়িত্ব পেয়েছিলেন বেনটো। শিন টায়ে-ইয়ংয়ের স্থলাভিষিক্ত হয়েছিলেন তিনি। কাতারে তার অধীনে দক্ষিণ কোরিয়া দারুণ পারফর্ম করে ২০১০ সালের পর প্রথমবারের মতো নক আউট পর্বে খেলার যোগ্যতা অর্জন করে। গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে তারা পর্তুগালকে পরাজিত করে।

যদিও গতকাল দোহার স্টেডিয়াম ৯৭৪’এ প্রথমার্ধেই ব্রাজিলের কাছে চার গোল হজম করে তারা দাঁড়াতেই পারেনি। কিন্তু তারপরই বদলি বেঞ্চ থেকে উঠে এসে পাইক সেয়াং-হো এক গোল পরিশোধ করেছেন, পাশাপাশি দ্বিতীয়ার্ধে ব্রাজিলকে দারুণভাবে রুখে দিয়েছে।

২০১৪ ব্রাজিল বিশ্বকাপে নিজ দেশ পর্তুগালের কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করা বেনটো বলেন, ‘এই বিশ্বকাপে আমরা যা করেছি তা নিয়ে সকলেই গর্বিত হবে বলেই আমার বিশ্বাস। গত চার বছর ধরে আমরা যে কঠোর পরিশ্রম করেছি তার ফল পেয়েছি।’

বাছাই পর্বে সন হেয়াং-মিনের নেতৃত্বে কোরিয়ান দল ইরানের পর দ্বিতীয় স্থানে থেকে কাতারের টিকিট পেয়েছিল। কালকের পরাজয়ের মধ্য দিয়ে আরো একবার নক আউট পর্বে কোনো ম্যাচ না জিতেই দক্ষিণ কোরিয়ান বিদায় ঘটলো।

বেনটো বলেন, ‘আমি মনে করি গ্রুপ পর্বে আমরা দারুণ খেলেছি। ঘানাকে পরাজিত করতে পারলে আরো পয়েন্ট অর্জন করা সম্ভব হতো। কিন্তু তারপরও আমি গর্বিত। এ পর্যন্ত আমি যত দল নিয়ে কাজ করেছি এই দলটি তার মধ্যে অন্যতম সেরা দল।’

বিডিসংবাদ/এএইচএস