পোল্যান্ড থেকে পাকিস্তান, ২৮ বছরের যুবককে বিয়ে করলেন ৮৩ বছরের প্রবীণা

বিডিসংবাদ অনলাইন ডেস্কঃ

ভালোবাসার বয়স হয় না। বয়স মেপে ভালোবাসা হয় না। আরো একবার প্রমাণ করে দিলেন ব্রোমা। মনের মানুষকে বিয়ে করবেন বলে পোল্যান্ড থেকে ছুটে গেলেন পাকিস্তানে। ব্রোমার বয়স ৮৩। আর তার প্রেমিকের বয়স ২৮।

সুদূর পোল্যান্ড থেকে হাফিজাবাদে ছুটে এসেছেন ব্রোমা। উদ্দেশ্য একটাই। হাফিজ মোহাম্মদ নাদিমকে বিয়ে করবেন। হাফিজ অটো সারাই করেন। সে সব নিয়ে অবশ্য একবারও ভাবেননি ব্রোমা। একটি পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যমকে হাফিজ জানান, ছয় বছর আগে আলাপ হয়েছিল ব্রোমার সাথে। তার পর নিয়মিত কথা হতো। কিন্তু কখনও দেখা হয়নি। বিয়ের সময়ই প্রথম দেখা।

হাফিজাবাদে এসে পুরোদস্তুর প্রথা মেনে বিয়ে করেছেন ব্রোমা আর হাফিজ। লাল পোশাকে সেজেছেন ৮৩ বছরের পাত্রী। হাতে মেহেন্দি পরেছেন। আবার মুসলিম রীতি মেনে পাত্রকে হক মেহের অর্থাৎ টাকাও দিয়েছেন। হাফিজের পরিবার জানিয়েছে, ফুফাতো বোনের সাথে বিয়ের ঠিক হয়েছিল হাফিজের। কিন্তু তিনি রাজি হননি। শেষ পর্যন্ত ব্রোমাকেই বিয়ে করেন। অসম বয়সের কারণে এই বিয়ের ছবি এখন ভাইরাল নেটমাধ্যমে। যদিও হাফিজরা একা নন।

গত মাসে ফিলিপাইনে ৭৮ বছরের এক প্রবীণ ১৮ বছরের এক তরুণীকে বিয়ে করেন। রাশাদ মাঙ্গাকোপ নামে ওই প্রবীণ পেশায় কৃষক ছিলেন। তিন বছর আগে একটি পার্টিতে হালিমা আবদুল্লার সাথে দেখা হয়। হালিমার বয়স তখন ১৫। এর আগে কখনো কারো প্রেমে পড়েননি রাশাদ। বিয়েও করেননি। গত তিন বছর ধরে এক সাথেই থাকছিলেন তারা। অবশেষে দুই পরিবারের সম্মতিতে বিয়ে করেছেন।
সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা

বিডিসংবাদ/এএইচএস

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here