মানবিক কর্মীদের রক্ষার জন্য ইসরায়েলের প্রতি ডব্লিওএইচও সদস্যদের আহ্বান

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বেশ কয়েকটি সদস্য দেশ গাজায় মানবিক কর্মীদের রক্ষায় আন্তর্জাতিক আইনের বাধ্যবাধকতাকে সম্মান করতে ইসরায়েলের প্রতি আহ্বান জানিয়ে একটি খসড়া প্রস্তাব পেশ করেছে।
খসড়া এই প্রস্তাবটির বিষয়বস্তু রোববার বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিওএইচও) নির্বাহী বোর্ডের ‘অধিকৃত ফিলিস্তিনী অঞ্চলের স্বাস্থ্য পরিস্থিতি’ নিয়ে আয়োজিত বৈঠককালে পর্যালোচনা করা হবে।
আলজেরিয়া, বলিভিয়া, চীন, মিসর, ইন্দোনেশিয়া, ইরাক, জর্ডান, লেবানন, মালয়েশিয়া, মরক্কো, পাকিস্তান, কাতার, সৌদি আরব, তিউনিশিয়া, তুরস্ক, সংযুক্ত আরব আমিরাত এবং ইয়েমেন প্রস্তাবটি পেশ করে।
ডব্লিওএইচওতে ফিলিস্তিনী প্রতিনিধিদের পর্যবেক্ষকের মর্যাদা রয়েছে। তারাও প্রস্তাবটিতে স্বাক্ষর করেছে।
ডব্লিওএইচও’র সদস্য দেশগুলো পূর্ব জেরুজালেমসহ অধিকৃত ফিলিস্তিনী অঞ্চলের বিপর্যয়কর মানবিক পরিস্থিতি বিশেষ করে গাজা উপত্যকায় সামরিক অভিযানের বিষয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে।
তারা মানবিক কর্মী বিশেষ করে যারা সরাসরি চিকিৎসার কাজে নিয়োজিত তাদের এবং হাসপাতাল ও অন্যান্য চিকিৎসা কেন্দ্রের সাথে জড়িতদের প্রতি ‘সম্মান ও সুরক্ষা’ দেয়ার জন্যে ইসরাইলের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।
এছাড়া আলাদাভাবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মুখপাত্র ক্রিশ্চিয়ান লিন্ডমিয়ার শুক্রবার বলেছেন, গাজার পরিস্থিতি দিনকে দিন ধারনার চেয়েও বেশি ভয়ংকর হয়ে যাচ্ছে।
উল্লেখ্য, গত ৭ অক্টোবর হামাস ইসরায়েলে আকস্মিক বড়ো ধরনের হামলা চালায়। এতে ১২শ ইসরাইলী প্রাণ হারায়। এর পর পরই ইসরাইল গাজায় নির্বিচারে বোমা বর্ষণ ও পরে সর্বাত্মক হামলা শুরু করে। তাদের অব্যাহত হামলায় ১৭ হাজার ৪৮৭ ফিলিস্তিনী নিহত হয়। এদের অধিকাংশই নারী ও শিশু।

বিডিসংবাদ/এএইচএস