দলে দলে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আসছেন ওলামা মাশায়েখরা

ভাই, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের রাস্তা কোনদিকে। ভোর ৭টায় দোয়েল চত্বরের সামনে পথচারী একজনকে সামনে পেয়ে বোরকা পরিহিত এক মহিলা হাসপাতালের ঠিকানা জানতে চাইলেন। পথচারী আঙ্গুল দিয়ে সোজা পশ্চিম দিকে দেখিয়ে দিলেন। ওই মহিলা একা নন। তার সঙ্গে পাঞ্জাবি পায়জামা পরিহিত আনুমানিক ১৫-২০জনের একটি দল।

আলাপকালে জানা গেল, তারা সকলেই নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার ইসলামি ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তা-কর্মচারী। শাহিন আক্তার নামের ওই মহিলা ফিল্ড সুপারভাইজার। সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে ওলামা মাশায়েখ মহাসম্মেলনে যোগ দিতে বুধবার বিকেলে ৮০ জনের একটি দল নিয়ে রিজার্ভ বাসে রওনা হন। ভোর ৪টায় বায়তুল মোকাররম মসজিদে এসে ফজরের নামাজ পড়েন। এরপর হাঁটতে হাঁটতে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের উদ্দেশ্যে রওনা হন।

তিনি জানান, তার উপজেলায় ফিল্ড সুপারভাইজার, মডেল কেয়ারটেকার কাম সুপারভাইজার, শিক্ষক ও শিক্ষিকাসহ মোট ৯৮জন কর্মকর্তা-কর্মচারী রয়েছেন। শুধুমাত্র ১৮জন মহিলা ছাড়া সকলেই উপস্থিত হয়েছেন। তিনি বলেন, সকাল ১০টায় উদ্যানের গেট খুলবে। তাই তারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকার আশপাশে ঘুরে দেখছেন। এক শিক্ষকের অসুস্থ বাবাকে দেখতে সবাই ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যাচ্ছেন। শুধু নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার এই কর্মকর্তা কর্মচারীরাই নন, দেশের সব জেলা থেকে ইসলামি ফাউন্ডেশনে কর্মরত ওলামা মাশায়েখসহ সকল কর্মকর্তা কর্মচারী মহাসম্মেলনে যোগ দিতে দলে দলে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ছুটে আসছেন। বিকেল ৩টায় সমাবেশ শুরু হওয়ার কথা রয়েছে।

ধর্মমন্ত্রী অধ্যক্ষ মতিউর রহমানের সভাপতিত্বে মহাসম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বিশেষ অতিথি হিসেবে পবিত্র মক্কার সিনিয়র ইমাম শায়খ মুহাম্মদ বিন নাসির আল খুজাইম ও মদিনার মসজিদে নববির ইমাম ড. আবদুল মহসিন বিন কাসেম উপস্থিত থাকবেন। সকাল ১০টা থেকে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের প্রবেশপথ খুলে দেয়া হবে।

সরেজমিন পরিদর্শনকালে দেখা গেছে, সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের বিভিন্ন প্রবেশপথে বিলবোর্ড স্থাপন করে কোন জেলার কতজন ওলামা কোন গেট দিয়ে প্রবেশ করবেন তা লেখা রয়েছে। চারুকলার বিপরীতে ছবির হাট সংলগ্ন ফুটপাত থেকে দোয়েল চত্বর পর্যন্ত খাবার পানির ট্যাংকি বসানো হয়েছে। নিরাপত্তা রক্ষায় রাস্তায় টহল দিচ্ছে পুলিশ। ভোরে বাস ঢাকায় পৌঁছানোর কারণে অনেকেই সময় কাটাতে তিন নেতার মাজার, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় লাইব্রেরি, চারুকলা সংলগ্ন কাজী নজরুল ইসলামের মাজারের আশেপাশে ঘুরে বেড়াচ্ছেন।

মো.আবুল কালাম নামের মডেল কেয়ারটেকার কাম সুপারভাইজার জানান, আল্লাহর ঘর মক্কা ও মদিনা মুসলমানদের অতি প্রিয় স্থান। সেখানকার মসজিদের খতিবসহ আলেম ওলামারা আসছেন। তাদের বয়ান শুনে দিনটা ভাল কাটবে বলে আশা করছেন। নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার দক্ষিণ চর ক্লার্ক গ্রামের আবদুল মান্নানের ছেলে আবদুর রহমান ইসলামি ফাউন্ডেশন পরিচালিত মক্তব্যে কোরআন শিক্ষা দেন। তিনি আজই প্রথম ঢাকায় এসেছেন। ভোর থেকে খুব আগ্রহ নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকার আশপাশে ঘুরে দেখছেন। মহাসম্মেলন শেষে আজই দলের সঙ্গে ফিরে যাবেন। ক্ষণিকের দেখায় ঢাকা শহর ভাল লেগেছে বলে মন্তব্য করলেন তিনি।